জমাট কুয়াশায় মুখ ঢেকে রাত জাগে যত বিষন্ন অন্ধকার

রোদেলা দিন   //  কালিদাস দাস

  .

জমাট কুয়াশায় মুখ ঢেকে রাত জাগে যত বিষন্ন অন্ধকার
নিয়নের শহরে ট্রামলাইন ঘেঁষে সাজে ক্ষুধার্ত দেহের পসার

জেব্রা ক্রসিং জুড়ে কার্পেটের মত পড়ে অাছে শৈশবের বিস্মৃত ম্যাপ
অালু পোস্ত অার চিলি পাস্তা——মাঝে সাত সমুদ্র তেরো নদীর গ্যাপ

ঠোঁটের কোণে মুখরিত ভার্চুয়াল চরম বিবাদ
সস্তা ফুলকপির ভিড়ে তুমি ব্রোকোলির অভিজাত স্বাদ

অাত্মিক ক্ষোভগুলো অাত্মা ছুঁয়েও রেখে গেছে অপূরণীয় ঋণ—–
সেপটিক ব্যথার মতই টনটনিয়ে ওঠে তোমার নামের মত এক রোদেলা দিন…

.

অাক্ষেপ  // কালিদাস দাস

.

দেহছায়া জুড়ে যত জান্তব উৎপাত! রূপোর হাঁসুলীর মত ভেসে বেড়াচ্ছে মেঘ।উঠোনের এক কোণে কর্ষণজীবী ইদুঁরের যৌথখামার।জিরাফের গ্রীবার মতই যত সমস্যার অনন্ত প্রসারণ।চোরাবালির নীচে জীবনের অন্য স্বরূপ!

মাটির দেওয়ালে জংলী অাঁকিবুঁকি।ফুল,পাতা,নাভিপদ্ম কিংবা নিছক তালসারির ছবি। মেঠোপথ মুখরিত অালকাপের কথায়——-
“শুনো গো মনপিয়া/বাজারে নাই তেলাপিয়া/শালার বউ অাসলো ঘরে/মান বাঁচাইবো কী দিয়া…”

অঘ্রাণের চৌকাঠে নবান্নের গন্ধদাগ।কথকতার মায়াময় অাবেশে মন ভেজে অশ্রুপ্লাবনে। দুঃস্বপ্নের নজরমিনার টপকে দেখি সুদিন অাসছে অালো মেখে….

এত অালোর মধ্যেই সমুজ্জ্বল তোমার মুখচ্ছবি
অথচ অাজ বহুদিন হলো অামার মনের মতো করে তোমাকে দেখা হয়ে ওঠেনি !!

 

অালাপনবৃত্ত ও সাধ  //  কালিদাস দাস

.

এক দুরন্ত বৃষ্টির ভেতর হেঁটে যাচ্ছে যত অালাপনবৃত্ত
কীভাবে যেন নিবের কলম বেয়ে ঝরছে জল!রক্তশূন্যতায়…

বাঁ-হাতের অনামিকায় হিরের দ্যুতি নিয়ে জমেছে সংসারবিন্দু
ভাবি, অাকাশের অলিন্দে যদি কাশের গোছা মাথা দোলায়
তবে তোমাদের পাড়ায় বাঁশ পোঁতা শুরু হবে….বেজে উঠবে অাগমনি সংগীত!

অার নিশানা পুঁতে রেখে জলে নেমেছে যেসব দুঃসাহসিক
জলপ্রেমি
তাদের উদ্দেশ্যে কিছু নৌকো ভাসাই চলো—-

তাদের ফেরার মধ্যেই অামাদের জলকেলির অপূর্ণ
সাধটুকু লেগে অাছে
খামবন্দি চিঠির গায়ে লেগে থাকা ডাকটিকিটের মতই !

 

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *